জাতীয়

ক্লাস-পরীক্ষা বন্ধের দাবিতে চার শিক্ষার্থীর অনশন

এখনই সময় :

করোনাভাইরাসের সংক্রমণ থেকে সুরক্ষা পেতে অবিলম্বে ক্লাস-পরীক্ষা বন্ধের দাবিতে অনশনে বসেছেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের চার শিক্ষার্থী। বন্ধ ঘোষণা না করা পর্যন্ত অনশন চালিয়ে যাওয়ার ঘোষণা দিয়েছেন ওই শিক্ষার্থীরা। আজ শনিবার রাত আটটার দিকে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের রাজু ভাস্কর্যের পাদদেশে অনশনে বসেন তারা।

অনশনকৃত পাঁচ শিক্ষার্থী হলেন, টেলিভিশন, ফিল্ম এন্ড ফটোগ্রাফি স্টাডিজ বিভাগের শিক্ষার্থী হাসান বিশ্বাস, মনোবিজ্ঞান বিভাগের জোনাইদ হোসেন, রাষ্ট্রবিজ্ঞান বিভাগের ইয়াসিন আরাফাত প্লাবন ও একই বিভাগের কে এম তূর্য। এরা সবাই তৃতীয় বর্ষের শিক্ষার্থী।

এদিকে করোনাভাইরাস বিশ্বব্যাপী মহামারি আকার ধারণ করায় সকল ধরণের জনসমাগম এড়িয়ে চলতে বলেছে সরকার। এই ঘোষণার পরপরই স্কুল কলেজ ও বিশ্ববিদ্যালয় বন্ধের দাবি তোলেন শিক্ষার্থীরা। বিশ্ববিদ্যালয়ের বিভিন্ন সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে বন্ধের দাবিতে সরব রয়েছে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা। ইতোমধ্যে অর্থনীতি, প্রাণিবিদ্যা বিভাগের শিক্ষার্থীরা ক্লাস বর্জন করেছেন। এছাড়াও মার্কেটিং ও সাংবাদিকতা বিভাগের কয়েকটা ব্যাচের ক্লাস ও মিড টার্ম পরীক্ষা স্থগিত করা হয়েছে।

এই বিষয়ে টেলিভিশন, ফিল্ম অ্যান্ড ফটোগ্রাফি স্টাডিজ বিভাগের শিক্ষার্থী হাসান বিশ্বাস বলেন, সারা বিশ্বে যখন করোনা মহামারি আকার ধারণ করেছে। এমনকি আমাদের দেশেও সতর্কতা জারি করা হয়েছে। কিন্তু এতকিছুর পরেও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন শিক্ষার্থীদের জন্য কোন ধরনের পদক্ষেপ নেয়নি। যা অত্যন্ত দুঃখজনক।

তিনি আরও বলেন, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রধান সমস্যাগুলোর মধ্যে গণরুম সমস্যা অন্যতম ৷ সিট না পেয়ে গাদাগাদি করে থাকতে হয় প্রথম ও দ্বিতীয় বর্ষের শিক্ষার্থীদের। তুলনামূলক ছোট ক্যাম্পাসে অত্যাধিক শিক্ষার্থী গাদাগাদি করে বসবাস করায় আক্রান্ত কারো সংস্পর্শে খুব অল্প সময়ের মধ্যেই ভাইরাসটি মহামারী আকার ধারণ করতে পারে। এমতাবস্থায় বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনের কাছে অনির্দিষ্টকালের জন্য ক্লাস-পরীক্ষা বন্ধ ঘোষণা করার জোর দাবি জানাচ্ছি। আমাদের দাবি আদায় না হওয়া পর্যন্ত আমরা অনশন চালিয়ে যাবো।

Related Articles

Leave a Reply

Back to top button
Close