ব্যবসা

ব্যবসাবান্ধব নীতিমালা চায় যুক্তরাষ্ট্র

এখনই সময় :

বাংলাদেশের সঙ্গে বাণিজ্য ও বিনিয়োগের ক্ষেত্রে যুক্তরাষ্ট্র কাস্টমস প্রসেস ও ট্যাক্স সহজ এবং ব্যবসাবান্ধব নীতিমালা চায় বলে জানিয়েছেন বাণিজ্যমন্ত্রী টিপু মুনশি। তিনি বলেন, যুক্তরাষ্ট্র বাংলাদেশে বিনিয়োগ ও বাণিজ্য বৃদ্ধি করতে আগ্রহী। বিনিয়োগের ক্ষেত্রগুলো চিহ্নিত করে যুক্তরাষ্ট্রের বিনিয়োগকারীরা বিনিয়োগ করবেন। তবে তারা ব্যবসাবান্ধব ট্রেড পলিসির কথা বলেছে।

গতকাল মঙ্গলবার সচিবালয়ে তার অফিস কক্ষে ঢাকায় সফররত যুক্তরাষ্ট্রের সহকারী বাণিজ্য প্রতিনিধি ক্রিস্টোফার উইলসনের নেতৃত্বে আগত একটি প্রতিনিধিদলের সঙ্গে মতবিনিময় শেষে সাংবাকিদের তিনি এসব কথা জানান।

বাণিজ্যমন্ত্রী বলেন, বাণিজ্য ও বিনিয়োগ বাড়াতে উভয় দেশের স্বার্থ সংরক্ষণ করে আগামী বৃহস্পতিবার টিকফা বৈঠকে আলোচনা করে সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে। সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, দেশের তৈরি পোশাক খাতের ফ্যাক্টরিগুলো এরই মধ্যে কমপ্লায়েন্স হয়েছে। শ্রম আইন সংশোধন করে সময়পোযোগী করা হয়েছে। আমদানি-রপ্তানির সুবিধার জন্য পোর্টগুলো উন্নত করা হয়েছে।

বাণিজ্যমন্ত্রী বলেন, বিনিয়োগকারীদের সুবিধার জন্য সরকার বিনিয়োগবান্ধব নীতি গ্রহণ করেছে। ট্যাক্সের ক্ষেত্রে বিশেষ সুবিধা দেওয়া হচ্ছে। বিনিয়োগকারীরা প্রয়োজনে মূলধনসহ মুনাফা ফিরিয়ে নিতে পারবেন।

ক্রিস্টোফার উইলসন বলেন, মার্কিন যুক্তরাষ্ট বাংলাদেশের সঙ্গে বাণিজ্য ও বিনিয়োগ বৃদ্ধি করতে আগ্রহী। এজন্য বাংলাদেশের কাস্টমস প্রসেস, ট্যাক্স, ই-কমার্স ইত্যাদি বিষয়গুলো আরো সহজ হওয়া প্রয়োজন। বাণিজ্য প্রতিবন্ধকতাগুলো দূর হলে বাণিজ্য সহজ হবে। বাংলাদেশ অনেক উন্নতি করেছে উল্লেখ করে তিনি বলেন, যুক্তরাষ্ট্রের বাজারে বাংলাদেশের তৈরি পোশাকের বেশ চাহিদা রয়েছে। যুক্তরাষ্ট্রের তুলা বাংলাদেশে রপ্তানির সম্ভাবনা রয়েছে। বাংলাদেশকে জিএসপি সুবিধা প্রদানসহ সংশ্লিষ্ট বিষয়গুলো নিয়ে আগামী টিকফা বৈঠকে আলোচনার সুযোগ রয়েছে।

ইউএস ট্রেড রিপ্রেজেনটেটিভ প্রতিনিধিদলে ছিলেন ঢাকাস্থ মার্কিন রাষ্ট্রদূত আর্ল রবার্ট মিলার পলিটিক্যাল অ্যান্ড কমার্শিয়াল কান্সিলর ব্রেন্ট ক্রিসটেনসেন প্রমুখ। বৈঠকে বাণিজ্য সচিব ড. মো. জাফর উদ্দিন, অতিরিক্ত সচিব (রপ্তানি) মো. ওবায়দুল আজম, অতিরিক্ত সচিব ও ডব্লিউটিওর মহাপরিচালক মো. কামাল উদ্দিনসহ বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র কর্মকর্তাবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

আরও সংবাদ

মন্তব্য করুন

Back to top button