টেক

নিরাপদ থাকুন ফেসবুকে

এখনই সময়:

সম্প্রতি বিশ্বব্যাপী পালিত হল প্রাইভেসি দিবস বা তথ্য সুরক্ষা দিবস।

যুক্তিগত তথ্য সুরক্ষার প্রয়োজনীয়তা সম্পর্কে সচেতনতা তৈরি এবং অনলাইনে ব্যক্তিগত গোপনীয়তার বিষয়টি সুরক্ষার অধিকার নিশ্চিত করাই এ দিবস পালনের মূল লক্ষ্য।

এ দিবস উপলক্ষে বিশ্বব্যাপী তথ্যপ্রযুক্তি সংগঠনগুলো ব্যাপকভাবে সোচ্চার ছিল। বিশ্ব প্রাইভেসি দিবসে নতুন ফিচার নিয়ে এলো ফেসবুক। নতুন এ ফিচারে ব্যবহারকারী যেসব ওয়েবসাইট, অ্যাপ ও দোকান ভিজিট করেছেন সেই তালিকা দেখা যাবে।

নতুন ফিচার ব্যবহার করে এই ট্র্যাকিং বন্ধ করা ও সব ট্র্যাকিং তথ্য ডিলিট করে দেয়ার সুবিধা রয়েছে। এর আগে এসব সুবিধার প্রতিশ্রুতি দিয়েছিলেন ফেসবুকপ্রধান মার্ক জুকারবার্গ। নতুন ফিচারে সে কথা রাখলেন তিনি।

ফেসবুক জানিয়েছে, ব্যবহারকারী কোনো অ্যাপ অথবা ওয়েবসাইট ভিজিট করলে বিভিন্ন টুল ব্যবহার করে সেই তথ্য ফেসবুকের সঙ্গে শেয়ার করতে পারে কোম্পানিগুলো। এ তথ্য ব্যবহার করে আপনাকে সঠিক বিজ্ঞাপন দেখান হয়। এ টুল ব্যবহার করার আগে গ্রাহককে সতর্কবার্তা দেয় কোম্পানিগুলো।

কী কী থাকছে নতুন এ ফিচারে : ১। ফেসবুক সেটিংস ওপেন করে ‘ইওর ফেসবুক ইনফরমেশন’ সিলেক্ট করুন। ২। এবার ফেসবুক মেন্যু থেকে ‘অফ ফেসবুক অ্যাকটিভিটি’ সিলেক্ট করুন। ৩। এর পরে স্ক্রিনে আপনার তথ্য ডিলিট করার উপায় ভেসে উঠবে। ৪। এ স্ক্রিনের উপরে আপনি যে অ্যাপ ও ওয়েবসাইট ব্যবহার করেছেন সেই আইকন চলে আসবে। আইকনে ট্যাপ করে সম্পূর্ণ লিস্ট ওপেন করতে পারবেন।

৫। এবার বিগত ১৮০ দিন আপনি যেসব অ্যাপ ও ওয়েবসাইট ব্যবহার করেছেন সেই তালিকা চলে আসবে। ‘ক্লিয়ার হিস্ট্রি’ সিলেক্ট করে এ তথ্য মুছে ফেলতে পারবেন। ৬। ডান দিকে ‘ম্যানেজ ফিউচার অ্যাকটিভিটি’ থেকে ভবিষ্যতের ট্র্যাকিং বন্ধ করতে পারবেন। ৭। এই অপশন বন্ধ করে দিলে ভবিষ্যতে ফেসবুক আপনার তথ্য সেভ করবে না।

উল্লেখ্য, ১৯৮১ সালে ইউরোপের সংগঠন ‘কাউন্সিল অব ইউরোপ’ কনভেনশন ১০৮ স্বাক্ষরের মধ্য দিয়ে বিশ্বে প্রথম এ দিবস পালন শুরু হয়। প্রতিবছর দিবসটি বিশ্বব্যাপী পালিত হয়। এবার দিবসটি উপলক্ষে বিশ্বব্যাপী নানা কর্মসূচি পালন করা হয়। যুক্তরাষ্ট্রের সানফ্রান্সিসকো শহরে আন্তর্জাতিক সেমিনারের আয়োজন করে।

কাউন্সিল অব ইউরোপ এবং সাইবার সিকিউরিটি অ্যান্ড ইনফর্মেশন সিস্টেম অ্যানালাইসিস সেন্টার (সিএসআইএসি) এ বছর দিবসটির মূল প্রতিপাদ্য নির্ধারণ করেছে ‘পারসোনাল ইনফর্মেশন ইজ লাইক মানি- ভ্যালু ইট, প্রটেক্ট ইট।’ বাংলায় যার অর্থ দাঁড়ায়- ‘ব্যক্তিগত তথ্য টাকার সমতুল্য। একে মূল্য দিন, রক্ষা করুন।’

যুক্তরাষ্ট্রভিত্তিক ন্যাশনাল সাইবার সিকিউরিটি অ্যালায়েন্স এ বছর দিবসটি পালন উপলক্ষে বিশ্বব্যাপী প্রচারের কর্মসূচি হাতে নিয়েছে। তাদের প্রচারের স্লোগান হচ্ছে- ‘ব্যক্তিগত তথ্য নিয়ন্ত্রণ করুন।’

Related Articles

Leave a Reply

Back to top button
Close