টেক

নারীর নিরাপত্তায় তৈরি হলো ’লিপস্টিক গান’

এখনই সময়  :দেশের পাশাপাশি গোটা বিশ্ব জুড়ে প্রায় প্রতিদিন ঘটছে নারী নির্যাতন, রাস্তাঘাটে মহিলাদের ওপর হেনস্থা বা ধর্ষণের মতো ন্যাক্কারজনক ঘটনা। সাম্প্রতিক বিশ্বে এমন পরিস্থিতি মোকাবেলায় নারীদের কিছু কৌশল অবলম্বন করা উচিত বলে মনে করছেন বিশেষজ্ঞরা । এমন পরিস্থিতি মোকাবেলায় নারীদের পাশে দাঁড়ালেন ভারতের উত্তরপ্রদেশের বারাণসীর এক বিজ্ঞানী।

সম্প্রতি নারীর নিরাপত্তার কথা বিবেচনা করে ভারতীয় বিজ্ঞানী শ্যাম চৌরাসিয়া তৈরি করলেন ’লিপস্টিক গান’ গ্যাজেটটি। তবে লিপস্টিক গানটি দিয়ে গুলি ছোড়ার বদলে বিকট শব্দে ফাটার আওয়াজ হবে। এ শব্দ মূলত কোনো নারী বিপদে পড়লে সংকেতবার্তা হিসেবে কাজ করবে। খবরঃ এনডিটিভি

ওই সুরক্ষা গ্যাজেটটি কারও কাছে থাকাকালে কেউ বিপদে পড়লে সহজে এটি ব্যবহার করে বিস্ফোরণের মতো শব্দ ঘটাতে পারবে। ওই বিকট শব্দ শুনে আক্রমণকারী ঘাবড়ে পালিয়ে যেতে পারে অথবা আশেপাশের লোক ছুটে আসতে পারে। আর তাছাড়া “লিপস্টিক গান”-টির মাধ্যমে আপনি চাইলেই পুলিশকে জানানোর জন্যে ইমার্জেন্সী নম্বরে বিপদ সংকেত পাঠাতে পারবেন।

ওই অভিনব সুরক্ষা গ্যাজেটের আবিষ্কারক চৌরাসিয়া জানান, তিনি সাধারণ লিপস্টিক কভারে একটি অতিরিক্ত সকেট লাগিয়ে ’লিপস্টিক গান’ তৈরি করেছেন।

তিনি আরও জানান, ’কোনো নারী অস্বস্তিকর পরিস্থিতিতে পড়লে কেবল সকেটে লাগানো বোতামটি টিপলেই হবে। সঙ্গে সঙ্গে সেটি বিস্ফোরণের মতো একটি বিকট শব্দ সৃষ্টি করবে এবং পুলিশের ইমার্জেন্সী নম্বরে একটি বিপদ সংকেতও পাঠিয়ে দেবে। এটি ছোটোখাটো হওয়ায় যখন যেখানে খুশি নিয়ে যাওয়া সহজ। তাছাড়া এটি দেখতে একদম সাধারণ লিপস্টিকের মতো হওয়ায় এটি কাছে থাকলে কেউ কোনো সন্দেহ করবে না”।

’লিপস্টিক গান’ আপনি চার্জ দিয়ে ব্যবহার করতে পারেন এবং ব্লুটুথের মাধ্যমে এটি মোবাইল ফোনের সঙ্গেও যুক্ত করা যাবে।

বিজ্ঞানী বলেন, এই গ্যাজেটটি তৈরি করতে তার এক মাস সময় লেগেছে। আপাতত এটির দাম পড়বে প্রায় ৬০০ টাকা। তবে তিনি এই ডিভাইসটির পেটেন্ট করার পরিকল্পনা করছেন।

এছাড়া সম্প্রতি লিপস্টিক গানটি ব্যবহার করে বেনারস হিন্দু বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী শেফালি রাই বলেন, ’এটি সাংঘাতিক শব্দে বিস্ফোরণ হয় আর এটি কোথাও নিয়ে যাওয়া বেশ সুবিধাজনক। আপনি যখন এটিকে কোথাও বের করবেন, তখন কেউ সন্দেহই করবে না কারণ এটি দেখতে একদম লিপস্টিকের মতো’।

Related Articles

Leave a Reply

Back to top button
Close