লাইফষ্টাইল

শীতে গরম পানি দিয়ে গোসল করলে কী হয়?

শীতের কনকনে হাওয়ায় কাবু হয়ে পড়েন বেশিরভাগ মানুষ। পারতপক্ষে গোসলের দ্বারস্থ হতে চান না। তবুও পরিচ্ছন্নতার জন্য গোসল তো করতেই হয়। আর তখন উষ্ণতার জন্য বেছে নেন গরম পানি। অনেকে মনে করেন, এতে বুঝি শরীরের বেশ উপকারই হলো। কিন্তু এতে উপকার নয়, বরং ক্ষতিই হয় বেশি।

 

বাইরে প্রচণ্ড ঠান্ড আর আপনি গরম পানি দিয়ে আরামে গোসল সারছেন? কিন্তু এতে যে হঠাৎ করে হার্টের ক্ষতি হওয়ার আশঙ্কা বৃদ্ধি পায়, তা কি জানেন? শুধু তাই নয়, এতে হার্ট অ্যাটাকের সম্ভবনাও বাড়ে। তাই যাদের হার্টের সমস্যা রয়েছে তারা গোসল গরম পানি এড়িয়ে চলবেন।

 

পুরুষের জন্য গরম পানিতে দীর্ঘ সময় গোসল করা ক্ষতিকর। কারণ এতে সন্তান হওয়ার ক্ষেত্রে সমস্যা দেখা দিতে পারে। এমন অভ্যাসের কারণে ফার্টিলিটি কমে যায়। তাই পুরুষের উচিত ঠান্ডা পানি দিয়ে গোসল করা। এতে স্পার্ম কাউন্ট বৃদ্ধি পায়।

শীতের সময়ে ত্বক আর্দ্র রাখা সবচেয়ে জরুরি। কিন্তু গরম পানি দিয়ে গোসল করলে ত্বকের আর্দ্রতা দ্রুত হারায়। ত্বক রুক্ষ হয়ে ওঠে। তাই ত্বকের সুস্থতা ধরে রাখতে গরম পানিতে গোসল করা বন্ধ করুন।

 

গরম পানিতে গোসলের সময় আমাদের রক্তচাপে পরিবর্তন হতে শুরু করে। ফলে এই সময় সারা শরীরে রক্তের সরবরাহ ঠিক রাখার পাশাপাশি রক্তচাপ স্বাভাবিক রাখতে হার্টকে বেশি বেশি করে কাজ করতে হয়। ফলে যাদের হার্টের রোগ রয়েছে তাদের জন্য ঝুঁকি বাড়ে।

গরম পানি শরীরে পরা মাত্র রক্তচাপে হেরফের হতে শুরু করে। ফলে শরীরের কর্মক্ষমতা কমে গিয়ে মাথা ঘোরা, গা গোলানোর মতো লক্ষণ দেখা দিতে থাকে।

 

তাই শীতের ভয়ে গরম পানি দিয়ে গোসল করবেন না। বরং ভয়কে জয় করে ঠান্ডা পানিতে গোসলের অভ্যাস করুন। তাতে আপনি যেমন দিনভর সতেজ থাকবেন, তেমনই মিলবে নানা উপকার।

Related Articles

Leave a Reply

Back to top button
Close