আন্তর্জাতিক

ভারত জুড়ে বিক্ষোভ, মন্ত্রীদের নিয়ে জরুরি বৈঠকে বসছেন মোদী

নাগরিকত্ব সংশোধনী আইনের প্রতিবাদে উত্তাল রয়েছে ভারত। ইতোমধ্যে বিভিন্ন রাজ্যে ১৪ জনের বেশি মারা যাওয়ার খবর পাওয়া গেছে। নিহতের সংখ্যা আরও বাড়তে পারে।

ভারতীয় সংবাদমাধ্যম কলকাতা ২৪-এর খবরে বলা হয়, এমন পরিস্থিতিতে দেশের নিরাপত্তা বিষয়ে উদ্বিগ্ন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। শান্তি-শৃঙ্খলা ফেরানোর লক্ষ্যে শনিবার কেন্দ্রীয় মন্ত্রিসভার মন্ত্রীদের নিয়ে জরুরি বৈঠক ডেকেছেন তিনি।

এক সরকারি আধিকারিক বলেন, ‘কেন্দ্রীয় মন্ত্রিসভার সমস্ত মন্ত্রীদের নিয়ে এ দিন বৈঠকে বসবেন নরেন্দ্র মোদী। দেশের শান্তি এবং সুরক্ষার বিষয়ে আলোচনা করা হবে এই বৈঠকে।’

শনিবার সকাল থেকেই উত্তর প্রদেশের রামপুরে বিক্ষোভ শুরু হয়। জনতাকে ছত্রভঙ্গ করতে কাঁদানে গ্যাসের শেল ছোড়ে পুলিশ। শুক্রবার বিভিন্ন জেলায় জনতা-পুলিশ সংঘর্ষ হয়। শনিবারও চলে বিক্ষোভ। সেই বিক্ষোভ এখনও চলছে।

বিক্ষোভকারীরা অভিযোগ করেন, পুলিশের গুলিতে মারা গেছে মানুষ। এছাড়া সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হওয়া ভিডিওতে দেখা গেছে পুলিশ-বিক্ষোভকারীদের সংঘর্ষ চলাকালীন পুলিশই গুলি চালিয়েছে। এছাড়া সংঘর্ষের সময় পাথর ছোড়া ও পুলিশের বেশ কয়েকটি গাড়িতে আগুন দেওয়ার ঘটনাও ঘটেছে। তবে পুলিশ প্রশাসন জানিয়েছে, সংঘর্ষে অন্তত ৬ জন পুলিশ গুলিবিদ্ধ হয়েছেন।

অন্যদিকে শুক্রবার সকাল থেকে দিল্লির জামা মসজিদে শান্তিপূর্ণ আন্দোলন শুরু হলেও পরে তা সংঘর্ষে রূপ নেয়। কিন্তু উত্তর প্রদেশের মতো উত্তপ্ত পরিস্থিতি না হলেও শনিবার সকালেও উত্তেজনা রয়েছে দিল্লিতেও।

এদিকে রাজ্যের বিভিন্ন জেলায় সংঘর্ষ শুরু হওয়ার পর শুক্রবার রাত থেকেই বিজনৌর, মীরাট, ফিরোজাবাদ, কানপুর, সম্ভাল, মোরাদাবাদ, আলীগড়, এলাহাবাদসহ রাজ্যের বিভিন্ন জেলায় ইন্টারনেট সেবা বন্ধ করে দেওয়া হয়।

 

Related Articles

Leave a Reply

Back to top button
Close