রাজনীতি

তথ্যমন্ত্রীর নির্দেশে ধান কেটে ঘরে পৌঁছে দিল কৃষকলীগ

এখনই সময় :

করোনা ভাইরাসের বিস্তার রোধে অঘোষিত লকডাউনের কারণে বিপাকে পরা চট্টগ্রামের রাঙ্গুনিয়া উপজেলার দরিদ্র কৃষকদের ধান কেটে বাড়ি বাড়ি পৌঁছে দিচ্ছেন উপজেলা কৃষক লীগের নেতাকর্মীরা। আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ও তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ রাঙ্গুনিয়ার দরিদ্র কৃষকদের ধান কেটে বাড়ি পৌঁছে দিতে নির্দেশনা দেন উপজেলা কৃষকলীগ ও স্বেচ্ছাসেবক লীগকে।

শুক্রবার চট্টগ্রামের রাঙ্গুনিয়া উপজেলার দক্ষিণ রাজানগর ইউনিয়নের সোনারগাঁও এলাকার সাদেকের পাড়ার পূর্ববিলে কৃষক আবুল কালাম আবুর ধান কেটে দিয়ে ঘরে পৌঁছে দেয়ার মাধ্যমে এই কার্যক্রমের উদ্বোধন করা হয়।

রাঙ্গুনিয়া উপজেলা কৃষকলীগের ধান কেটে কৃষকের ঘরে পৌঁছানোর এই কর্মসূচিতে অংশ নেন চট্টগ্রাম উত্তর জেলা কৃষকলীগের সাধারণ সম্পাদক ও উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান মো. শফিকুল ইসলাম, উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ইঞ্জিনিয়ার শামসুল আলম তালুকদার, উপজেলা যুবলীগের সভাপতি আরজু সিকদার, উপজেলা কৃষকলীগের সাধারণ সম্পাদক আয়ুব রানা, যুগ্ম সম্পাদক আমির হোসেন আমু, পৌরসভা কৃষকলীগের সভাপতি এনামুল হক, দক্ষিণ রাজানগর ইউনিয়ন কৃষকলীগের সভাপতি মেম্বার বদিউল আলম আজিজ, ওমর ফারুখ, আরমান চৌধুরীসহ অন্তত ৫০ জন কৃষকলীগের নেতাকর্মীরা।

চট্টগ্রাম উত্তর জেলা কৃষকলীগের সাধারণ সম্পাদক ও উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান মো. শফিকুল ইসলাম বলেন, কৃষক বাঁচলে বাঁচবে দেশ। বোরো ধান কাটা শুরু হয়েছে সারাদেশে। চট্টগ্রামের শস্য ভাণ্ডারখ্যাত গুমাই বিল রাঙ্গুনিয়ায়। বিভিন্ন এলাকার মতো রাঙ্গুনিয়ায়ও ধান কাটার শ্রমিক সংকট দেখা যাওয়ায় রাঙ্গুনিয়া থেকে নির্বাচিত সাংসদ তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ এর নির্দেশে কৃষক লীগের নেতাকর্মীরা কৃষকের ধান কেটে দিচ্ছেন। পাশাপাশি কাটা ধান ঘরে তোলার ব্যবস্থাও করছেন তারা। কৃষকলীগের এ কার্যক্রম অব্যাহত থাকবে বলে জানান তিনি।

কৃষক আবুল কালাম আবু জানান, আমি দুই কানি জমিতে বোরা ধানের চাষ করেছি, ধানও পেকেছে। দেশের সঙ্কটময় পরিস্থিতিতে বাজারে শ্রমিক না পেয়ে যখন আমার কপালে ভাঁজ পড়ে তখন কৃষকলীগের ভাইয়েরা এসে আমার জমির ধান কেটে ঘরে তুলে দিয়ে গেলেন। এই সময়ে তারা কৃষকের পাশে এসে দাঁড়ানোয় রাঙ্গুনিয়ার অনেক দরিদ্র কৃষকের চিন্তামুক্ত হবে বলে তিনি জানান।

রাঙ্গুনিয়া উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ইঞ্জিনিয়ার শামসুল আলম তালুকদার বলেন, চট্টগ্রামের শস্য ভাণ্ডার গুমাই বিলসহ রাঙ্গুনিয়ার বিস্তীর্ণ এলাকায় বোরা ধান পেকেছে। প্রতিবছরের ন্যায় দেশের বিভিন্ন এলাকা থেকে এবার ধান কাটা শ্রমিকরা আসতে পারছে না। কৃষকের এই সঙ্কটে তথ্যমন্ত্রী নির্দেশ দিয়েছেন দরিদ্র কৃষকের ধান কেটে ঘরে তুলে দিতে। রাঙ্গুনিয়ার যেসমস্ত দরিদ্র কৃষক শ্রমিকের অভাবে ধান কাটতে বিপাকে পড়বে তারা যোগাযোগ করলেই কৃষকলীগের টিম পৌঁছে যাবে বলে তিনি জানান।

Related Articles

Back to top button
Close