টেক

বিএমটিএফের অল্টারনেটিভ ভ্যান্টিলেটরের সফল পরীক্ষা সিএমএইচে

এখনই সময় :

করোনা ভাইরাসের মহামারি ছড়িয়ে পড়ায় সারাবিশ্বেই সবচেয়ে প্রয়োজনী যন্ত্র হয়ে দাঁড়িয়েছে ভ্যান্টিলেটর। যুক্তরাষ্ট্রের মতো দেশও ভেন্টিলেটর সংকটে ভুগছে। আমাদের দেশে যা আছে তা অপ্রতুল। আর এমন এক অবস্থায় আশার কথা শোনালো বাংলাদেশ মেশিন টুলস ফ্যাক্টরি (বিএমটিএফ)।

প্রতিষ্ঠানটি জানায়, কনভেনশনাল ভেন্টিলেটরের বদলে অল্টারনেটিভ ভেন্টিলেটর উদ্ভাবন করেছে তারা। আজ ঢাকার সিএমএইচ হাসপাতালে পরীক্ষামূলক ব্যবহারও করা হয়েছে এই ভেন্টিলেটর।

বিএমটিএফ জানায়, দেশের বর্তমান আর্টিফিশিয়াল ভেন্টিলেটরের পরিসংখ্যান সংগ্রহের পর তাদেরকে বানানোর দায়িত্ব দেয়া হয়। ইঞ্জিনিয়ারদের সহযোগিতা নিয়ে দুই সপ্তাহের প্রচেষ্টায় কোভিড-১৯ রোগীদের আইসিইউ-তে ভেন্টিলেট করার মতো একটি প্রোভেন্টিলেটরে রূপান্তর করতে সক্ষম হয়। মেকানিকাল ভেন্টিলেটর এ থাকা দুইজন রোগীর (করোনা আক্রান্ত নয়) উপর এর প্রত্যক্ষ পর্যবেক্ষণে প্রয়োগও করা হয়। রোগীর পর্যবেক্ষণের সময় রোগীর সকল ভাইটাল প্যারামিটার সমূহ স্থিতিশীল পাওয়া যায়, যা অত্যন্ত উৎসাহ ব্যাঞ্জক। এই যন্ত্রটির কিছু ফাইন টিউনিং করা প্রয়োজন দেখা দেয় যা নিয়োজিত ইঞ্জিনিয়ারদের দ্বারা টিউনিং করা সম্ভব বলে জানিয়েছেন।

জানা গেছে, প্রাথমিক পর্যায়ে দুই ঘন্টা বিএমটিএফ-এর এই ভেন্টিলেটর এর মাধ্যমে রোগীকে ভেন্টিলেট করা হয়। আজ রাতেই আরো ছয় ঘণ্টা এ প্রক্রিয়ায় ভেন্টিলেট করা হবে।

বিএমটিএফ কর্তৃক বলছে, প্রতি সপ্তাহে ১ হাজার এই ধরনের ভেন্টিলেটর বানানো সম্ভব। এতে কভিড-১৯ রোগীদের জন্য এই ভেন্টিলেটরটি ‘কনভেনশনাল ভেন্টিলেটর’-এর অবর্তমানে ‘বিকল্প ভেন্টিলেটর’ হিসাবে কাজ করে অনেক রোগীর জীবন বাঁচাতে সহায়ক হবে।

Related Articles

Back to top button
Close